পাঁচবিবি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ডায়েরীয়ায় আক্রান্ত শতাধিক শিশু, স্যালাইন সংকট

Estimated read time 1 min read

জানুয়ারী,১৭,২০২৪

ফারহানা আক্তার, জয়পুরহাট :

প্রকৃতি এখন শীতের বার্তা দিচ্ছে। সকাল থেকে রাত পর্যন্ত ঢেকে যাচ্ছে ঘণ কুয়াশায়। কুয়াশার সঙ্গে পাল্লা দিয়ে বইছে হিমেল হাওয়া। এক সাথে ঘণ কুয়াশা ও হিমেল হাওয়া থেকে সৃষ্ট কনকনে শীতে কাবু মানুষ ও প্রাণীকূলে। সেইসাথে শীতে হাসপাতালে বাড়ছে নিউমোনিয়া, ডায়েরীয়া ও শ্বাসতন্ত্রের রোগে আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা। গত এক সপ্তাহে জয়পুরহাটের পাঁচবিবি উপজেলা ৫০ শয্যা বিশিষ্ট স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ডায়েরীয়া রোগে আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়ে চিকিৎসা নিয়েছেন শিশুসহ শতাধিক রোগী।

তবে, হাসাপাতালে ডায়েরীয়ার স্যালাইন সংকটের কারনে বিপাকে পড়ছেন হাসপাতালে ডায়েরীয়া রোগে চিকিৎসা নিতে আসা রোগীরা। খোলা বাজারে ডায়েরীয়ার স্যালাইন কিনতে হচ্ছে দ্বিগুণ দামে। উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সসূত্রে জানাগেছে, গত এক সপ্তাহে ডায়েরীয়া রোগে আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়ে চিকিৎসা সেবা নিয়েছেন শিশুসহ শতাধিক রোগী। এসব রোগীদের মধ্যে শূণ্য থেকে পাঁচ বছরের শিশু রয়েছে ৩৭ জন ও পাঁচ বছর থেকে সব বয়সি নারী-পুরুষ রয়েছেন ৬০ জন।

হাসপাতালের সেবীকারা বলছেন, দীর্ঘদিন যাবৎ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ডায়েরীয়া রোগীদের জন্য স্যালাইন সরবরাহ নেই। এছাড়া ডায়েরীয়া রোগীদের বোমোনের ইঞ্জেকশন ও শিশুদের ফোঁড়ানো ক্যানেলাও সংকট আছে। তবে সীমাবদ্ধতার মধ্যেই এই রোগীদের চিকিৎসা দিচ্ছে স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স কর্তৃপক্ষ।

এদিকে ডায়েরীর প্রকোপ বাড়ার পর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে কলেরা রোগের বিনামূল্যের আইভি স্যালাইনের সংকট দেখা দিয়েছে। ফলে রোগীদের জন্য বাইরের দোকান থেকে আইভি স্যালাইন কিনতে বাধ্য হচ্ছেন স্বজনরা। বাইরেও প্রয়োজনের তুলনায় কম স্যালাইন পাওয়া যাচ্ছে বলে জানিয়েছেন রোগীর স্বজনরা। কয়েক দোকান ঘুরে স্যালাইন পাওয়া গেলেও বেশি দামে কিনতে হচ্ছে দোকান থেকে। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক শহরের এক ওষুধ বিক্রেতা জানান, কিছুদিন আগে যখন স্যালাইনের সংকট ছিল তখন এসব স্যালাইন ২৫০ থেকে ৩০০ টাকা মূল্যেও বিক্রি হয়েছে। এখন কম।

উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ কর্মকর্তা ডা: মো.সোলাইমান হোসেন মেহেদী বলেন, আমাদের হাসপাতালে কিছুটা সংকট রয়েছে। যদি জরুরি বিভাগে এক সঙ্গে বেশি পরিমানের রোগী হাসপাতালে ভর্তি হয় সেক্ষেত্রে আমাদের সক্ষমতার বাহিরে যাবে। আপদকালীন সময়ের জন্য হাসপাতালে যে পরিমাণের স্যালাইন মজুত থাকার কথা সেটি নেই। আমাদের সীমাবদ্ধতার মধ্যেই রোগীদের সেবা প্রদান করা হচ্ছে।

www.bbcsangbad24.com

আরও দেখুন আমাদের সাথে......

More From Author